দুরন্ত

পর্ণ দেখতে বাধা দিয়ে জরিমানা দিলেন ২২ লাখা টাকা

পর্ণ দেখতে বাধা দিয়ে জরিমানা দিলেন ২২ লাখা টাকা

সম্প্রতি আমেরিকায় ঘটে গেলো আজব একটি ঘটনা। এক দম্পতি তাদের ছেলেকে পর্ণ দেখতে বাধা দিয়ে এখন গুণছেন ২২ লাখ টাকা জরিমানা। পর্ন সম্পর্কিত বই এবং জিনিসপত্র বাইরে ফেলে দিয়ে ভেবেছিলেন ছেলেকে সঠিক পথে ফেরানো যাবে। কিন্তু এতে ক্ষুব্ধ হয়ে ছেলে তার নিজের বাবা-মায়ের বিরুদ্ধেই আদালতে মামলা দায়ের করে।  

আর বলাই বাহুল্য শেষ পর্যন্ত জিতে যায় সেই আলোচিত মামলায়। আর আদালত এর রায় অনুযায়ী, ছেলেকে ভারতীয় মুদ্রায় প্রায় ২২ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দিতে নির্দেশ দেয়া হয় ডেভিড নমের সেই ছেলের মা-বাবাকে। শুনতে অবাক লাগলেও এটিই সত্যি। আর এই খবর প্রকাশ্যে আসতে অনেকেই রীতিমতো অবাক হয়েছেন।

 একটি মার্কিন সংবাদপত্রের প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, সেই ৪২ বছর বয়সি ডেভিড অনেকদিন ধরেই নানা ধরণের পর্ন ছবি নিজের কালেকশনে রাখতেন। সম্প্রতি তার ডিভোর্স এর মামলাও চলছিল। 

 

আর তাই গত প্রায় ১০ মাস ধরে মা-বাবার সাথেই থেকেছেন তিনি। যদিও সম্প্রতি আবার মা-বাবার বাড়ি ছেড়ে ইন্ডিয়ানাতে থাকতে শুরু করেছিলেন ডেভিড। তবে তখনই সে বুঝতে পারে, দীর্ঘদিনের জমানো পর্ন ছবির কালেকশন নষ্ট করে দিয়েছে তার পরিবার। এরপরই মা-বাবার বিরুদ্ধে আদালত এর দ্বারস্থ হয় ডেভিড। এরপর তিনি মা-বাবার বিরুদ্ধেই মামলা দিয়ে দেন। 

 

নিজের সেই অভিযোগে ডেভিড জানান, তার কাছে ২৯ হাজার ডলার মূল্যের পর্ন ছবি সংগ্রহে ছিল। যা তার মা-বাবা নষ্ট করে দেয়। এরপরই মামলার শুনানিতে বিচারক ডেভিড এর পক্ষেই রায় দেন। তার মা-বাবাকে ওই পর্ণ ছবির সংগ্রহ নষ্ট বাবদ জন্য ৩০,৪৪১ মার্কিন ডলার অর্থাৎ ভারতীয় মুদ্রায় ২২ লাখ টাকা জরিমানা দেয়ার নির্দেশ দেয়।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

Related Articles

ভাইরাল নিউজ
স্পনসর
বিনোদন
টেকনোলজি
স্বাস্থ্য
স্পনসর